পাকশী রেলের ৪০ পাতার প্রতিবেদনে যা বলা হলো | todaybd24.com
সোমবার , ১৬ মে ২০২২ | ২৩শে অগ্রহায়ণ ১৪২৯
  1. অন্যান্য
  2. আন্তর্জাতিক
  3. আয় করুন
  4. আলোচিত সংবাদ
  5. খুলনা
  6. খেলাধুলা
  7. চট্টগ্রাম
  8. জাতীয়
  9. জেলার খবর
  10. টিপস
  11. ঢাকা
  12. তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি
  13. ধর্ম
  14. নিউজ
  15. পরিবার
esenler korsan taksi
সর্বশেষ খবর টুডে বিডি ২৪ গুগল নিউজ চ্যানেলে।
   

পাকশী রেলের ৪০ পাতার প্রতিবেদনে যা বলা হলো

                                           প্রতিবেদক
News Desk
মে ১৬, ২০২২ ৭:৫৩ অপরাহ্ন

Advertisements

রেলমন্ত্রীর স্ত্রী শাম্মী আক্তারের তিন আত্মীয়কে বিনাটিকিটে ট্রেন ভ্রমণ ও তাদের জরিমানা করার ঘটনায় টিটিই শফিকুল ইসলামকে নির্দোষ বলেছে তদন্ত কমিটি। সোমবার পাকশী রেলের ডিআরএমের কাছে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছে কমিটি। প্রতিবেদনে টিটিইকে সম্পূর্ণ নির্দোষ বলা হয়েছে।

Advertisements
Advertisements
Advertisements

সোমবার (১৬ মে) সকালে নিজ কার্যালয়ে ৪০ পাতার এ প্রতিবেদন জমা নেন পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) শাহীদুল ইসলাম।

Advertisements
Advertisements
Advertisements

এর আগে গত ৭ মে ঘটনার প্রকৃত কারণ খুঁজে বের করতে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। এতে পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ে সহকারী পরিবহন কর্মকর্তা (এটিও) সাজেদুল ইসলামকে প্রধান এবং সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী (এইএন) শিপন আলী ও রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর সহকারী কমান্ডেন্ট (এসিআরএনবি) আবু হেনা মোস্তফা কামালকে সদস্য করা হয়।

দুই কার্য দিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার কথা থাকলেও পরে আরও ২ দিন সময় বাড়ানো হয়। বৃহস্পতিবার প্রতিবেদন দাখিল করার দিন ধার্য করা থাকলেও ডিআরএম ঢাকায় থাকায় এবং সরকারি ছুটি থাকায় তিন দিন পর সোমবার এই প্রতিবেদন জমা দেওয়া হলো।

তদন্ত কমিটির প্রধান ও পাকশী বিভাগীয় সহকারী পরিবহন কর্মকর্তা (এটিও) সাজেদুল ইসলাম বাবু সোমবার সকালে রেলওয়ের পাকশী বিভাগীয় ম্যানেজার শাহীদুল ইসলামের কাছে জমা দেওয়ার পূর্ব মুহূর্তে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেন, তদন্তের প্রয়োজনে এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট সবার সঙ্গে কথা বলেছি। তদন্ত প্রতিবেদন কত পাতার জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, ৪০ পাতার একটি তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে যাচ্ছি।

তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর রেলওয়ের পাকশী বিভাগীয় ম্যানেজার শাহীদুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটির তদন্তে টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ প্রমাণিত হয়েছেন। অভিযোগকারী যাত্রী ইমরুল কায়েস প্রান্তের অভিযোগ সঠিক নয়। টিটিই শফিকুল ইসলামের যাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণের অভিযোগটি মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে।

আরও পড়ুন:  কমেডিয়ান রনির সর্বশেষ আপডেট

তিনি বলেন, তদন্ত কমিটি আরও তথ্য পেয়েছে যে, গার্ড শরিফুল ইসলাম বিনা টিকিটের যাত্রীদের সহযোগিতা করে টিটিই শফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করিয়েছিলেন। এ ব্যাপারে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের কাছে গার্ড শরিফুলের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ করেছে তদন্ত কমিটি।

রেলমন্ত্রীর স্ত্রীর ফোনে টিটিই শফিকুল ইসলামকে বরখাস্তের ব্যাপারে ডিআরএম শাহীদুল ইসলাম বলেন, রেলমন্ত্রীর স্ত্রী রেলওয়ের কোনো কর্মকর্তা নন, তার কথায় টিটিই শফিকুল ইসলামকে বরখাস্তের সিদ্ধান্ত ডিসিও নাসির উদ্দিনের সঠিক ছিল না। এ ব্যাপারে তাকে শোকজ করা হয়েছে। ৭ দিনের মধ্যে শোকজের জবাব দিতে বলা হয়েছে। মঙ্গলবার জবাব দেওয়ার শেষ দিন।

প্রসঙ্গত, ৬ মে রেলমন্ত্রীর আত্মীয় পরিচয় দিয়ে বিনা টিকিটে রেল ভ্রমণ করায় তিন যাত্রীকে জরিমানা করায় সাময়িক বরখাস্ত করা হয় খুলনা থেকে ঢাকাগামী সুন্দরবন এক্সপ্রেসের ভ্রাম্যমাণ টিকিট পরীক্ষক (টিটিই) শফিকুল ইসলামকে। এ নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশের পর গত ৮ মে দুপুরে নিজ ক্ষমতাবলে টিটিই শফিকুল ইসলামের বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার করে তাকে স্বপদে বহাল করেন পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক শাহীদুল ইসলাম। একই সঙ্গে তিনি বরখাস্তকারী পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের বাণিজ্যিক কর্মকর্তা (ডিসিও) নাসির উদ্দিনকে শোকজ করেন।

রেলমন্ত্রী প্রথমে ওই তিন যাত্রীর সঙ্গে আত্মীয়তার সম্পর্ক অস্বীকার করলেও পরে স্বীকার করেন যে তার স্ত্রীর আত্মীয়।

সর্বশেষ - রাজনীতি

//thefacux.com/4/5519413
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
izmit escort kadıköy escort ataşehir escort rize escort uşak escort amasya escort samsun escort ankara escort diyarbakır escort
sincan evden eve nakliyat