ভয়াবহ স্মৃতি আর রাখতে চাইছে না, সেই স্টেডিয়াম ধ্বংস করে ফেলছে ইন্দোনেশিয়া | todaybd24.com
বুধবার , ১৯ অক্টোবর ২০২২ | ২১শে মাঘ ১৪২৯
  1. Tech
  2. uncategorized
  3. অন্যান্য
  4. আন্তর্জাতিক
  5. আয় করুন
  6. আলোচিত সংবাদ
  7. খুলনা
  8. খেলাধুলা
  9. চট্টগ্রাম
  10. জাতীয়
  11. জেলার খবর
  12. টিপস
  13. ঢাকা
  14. তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি
  15. ধর্ম
eryaman evden eve nakliyat gümüs alanlar Korsan taksi Esenler korsan taksi hile.fun
সর্বশেষ খবর টুডে বিডি ২৪ গুগল নিউজ চ্যানেলে।
   

ভয়াবহ স্মৃতি আর রাখতে চাইছে না, সেই স্টেডিয়াম ধ্বংস করে ফেলছে ইন্দোনেশিয়া

                                           প্রতিবেদক
টুডে বিডি ২৪
অক্টোবর ১৯, ২০২২ ৯:৪০ পূর্বাহ্ণ

Advertisements

ভয়াবহ স্মৃতি আর রাখতে চাইছে না ইন্দোনেশিয়া। যে স্টেডিয়ামে সংঘর্ষের কারণে পদপিষ্ট হয়ে ১৩০ জনের প্রাণহানি ঘটেছে, সেই ফুটবল স্টেডিয়াম সম্পূর্ণ ধ্বংস করে ফেলতে চাইছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। তবে সেখানে তৈরি করা হবে নতুন স্টেডিয়াম।

আরও পড়ুন:  এলোপাতাড়ি গুলি করে ১০ জনকে হত্যা, নিজেকে নির্দোষ দাবি হামলাকারীর
Advertisements
Advertisements
Advertisements
Advertisements

গত ১ অক্টোবর ইন্দোনেশিয়ার মালাংয়ে লিগের ম্যাচ চলার সময় সংঘর্ষ বাঁধে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যায়। এতে পদপিষ্ট হয়ে ১৩০ জনের মৃত্যু হয়।

Advertisements
Advertisements

মঙ্গলবার ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোরো উইডোডো বলেন, ফুটবল পাগল এই দেশে খেলার আমূল সংস্কার প্রয়োজন। সেই লক্ষ্যেই এই স্টেডিয়াম ভেঙে ফেলে নতুন স্টেডিয়াম তৈরি করা হবে।
বিশ্ব ফুটবলের নিয়ামক সংস্থা ফিফার প্রধান জিয়ান্নি ইনফান্তিনোর সঙ্গে নিজের বাসভবনে বৈঠক করেন উইডোডো। সেখানে তিনি বলেন, “মালাংয়ের কানজুরুহান স্টেডিয়ামকে আমরা পুরো ভেঙে ফেলব। তারপর সেখানে ফিফার নির্ধারিত মান বজায় রেখে নতুন স্টেডিয়াম তৈরি করব। ইন্দোনেশিয়ার ফুটবলকে যে ঢেলে সাজাতে হবে, সে ব্যাপারে আমি এবং ফিফা সভাপতি একমত। প্রতিটি পদক্ষেপ ফিফার বিধি অনুযায়ী করতে হবে।”

ইনফান্তিনো বলেন, “ইন্দোনেশিয়া ফুটবল পাগল দেশ। এখানে ১০ কোটি মানুষের কাছে ফুটবল একটা প্যাশন। তারা যখন খেলা দেখতে যাবেন, তাদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার দায়িত্বও আমাদের।”

ইন্দোনেশিয়ার ফুটবল লিগে গত ১ অক্টোবর জাভার দুই ক্লাব আরেমা এবং পার্সিবায়া সুরাবায়ার খেলা ছিল। পূর্ব জাভার মালাং রিজেন্সিতে আয়োজিত ম্যাচে আরেমা ৩-২ ব্যবধানে হেরে যায়। এর পর দু’দলের সমর্থকরা মারামারিতে জড়িয়ে পড়েন। একাধিক ভিডিওতে দেখা গেছে, রাত ১০টার কিছু আগে রেফারি খেলা শেষের বাঁশি বাজাতেই মাঠে নেমে পড়েন আরেমা সমর্থকরা। ক্ষুব্ধ সমর্থকদের আটকানোর চেষ্টা করেন কর্তব্যরত পুলিশ কর্মীরা। পুলিশ কর্মীদের সঙ্গেই সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন আরেমা সমর্থকরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে কাঁদানে গ্যাস ব্যবহার করে পুলিশ। ছত্রভঙ্গ হয়ে যায় ক্ষুব্ধ জনতা।

বহু মানুষ এক সঙ্গে স্টেডিয়ামের বাইরে যাওয়ার চেষ্টা শুরু করেন। বাইরে বের হওয়ার দরজার কাছে শুরু হয় প্রবল ধাক্কাধাক্কি। এ সময় ধাক্কাধাক্কির কারণে অনেকেই পড়ে নিচে যান। এতে পদপিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় অন্তত ৩৪ জনের। পরে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে বা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বাকিদের মৃত্যু হয়। সূত্র: আল জাজিরা, সিএনএন

সর্বশেষ - বিনোদন

salihli escort Hacklink istanbul escort Kamagra Levitra Novagra Geciktirici
//waufooke.com/4/5519413
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com